নতুন কর্মসূচি নিয়ে রাজপথে বিএনপি

:: পাবলিক রিঅ্যাকশন রিপোর্ট | পাবলিকরিঅ্যাকশন.নেট
প্রকাশ: ৫ মাস আগে

ভোটের পর প্রথম কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে শুক্রবার জেলায় জেলায় কালো পতাকা মিছিলের পর এবার দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির প্রতিবাদ ও কারাবন্দী নেতাকর্মীদের মুক্তির দাবিতে কালো পতাকা মিছিল কর্মসূচি দিয়েছে বিএনপি।

দলীয় সূত্র জানায়, শনিবার (২৭ জানুয়ারি) দুপুর ২টায় নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে মিছিল শুরু হয়ে শেষ হবে কাকারাইল ও মালিবাগ মোড় হয়ে মগবাজার মোড়ে গিয়ে।

শুক্রবার (২৬ জানুয়ারি) দলটির পক্ষ থেকে এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, মিছিলে বিএনপি জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্যবৃন্দ, সিনিয়র নেতৃবৃন্দসহ কেন্দ্রীয় এবং বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের সব স্তরের নেতাকর্মীরা অংশ নেবেন।

নির্বাচন বর্জনের ডাক দিয়ে হরতাল অবরোধ আর অসহযোগ আন্দোলনের করে আসা বিএনপি নির্বাচন পরবর্তী সময় কঠোর কর্মসূচি না দিয়ে অনেকটা ধীরে চলো নীতি অবলম্বন করছে। তবে ভোটের প্রায় ২০ দিন পর এবার দলীয় নেতাকর্মীদের মুক্তি, দ্রব্যমূল্য কমানো আর নির্বাচন বাতিলের দাবিতে সারা দেশের জেলা পর্যায়ে প্রতিবাদী কালো পতাকা মিছিল করল দলটি।

ভোটের পর প্রথম কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে শুক্রবার জেলায় জেলায় কালো পতাকা মিছিল করেছে বিএনপি। সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির উদ্যোগে কালো পতাকা হাতে বিক্ষোভ মিছিল করেন দলটির নেতাকর্মীরা। এসময় শহরের পুরাতন বাস্টস্ট্যান্ড এলাকা থেকে মিছিল বের করলে রায়পাড়া মোড়ে বাধা দেয় পুলিশ। পরে সেখানেই পথসভা করেন নেতাকর্মীরা।

ফরিদপুরেও একই দাবিতে কালো পতাকা মিছিল পুলিশের বাধায় পণ্ড হয়ে যায়। শহরের ব্রক্ষ্মসমাজ সড়ক থেকে জেলা বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা কালো মিছিল বের করলে মুজিব সড়কে প্রেস ক্লাবের সামনে বাধা দেয় পুলিশ।

নির্বাচন বাতিলের দাবিতে পিরোজপুরে কালো পতাকা মিছিল করেছে জেলা বিএনপি। সকালে দলীয় কার্যালয় থেকে মিছিলটি শুরু হয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে দামোদর ব্রিজে এসে শেষ হয়।

দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতিসহ বিভিন্ন প্রতিবাদে জামালপুর, গাইবান্ধা, নোয়াখালীসহ বিভিন্ন জেলায় কালো পতাকা মিছিল ও সমাবেশ করে বিএনপি। জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে এক কর্মসূচিতে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন দাবি করেন, ৭ জানুয়ারি আওয়ামী লীগের পরাজয় ঘটেছে।

একই অনুষ্ঠানে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. মঈন খান বলেন, সরকার একতরফা নির্বাচন করে ক্ষমতা দীর্ঘায়িত করতে চাইলেও তা জনগণ হতে দেবে না।

পরে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মঈন খান বলেন, রাজনীতি থেক দূরে রাখতেই নেতাকর্মীদের কারারুদ্ধ করে রেখেছে সরকার। আইনি প্রক্রিয়ায় দলীয় নেতাকর্মীদের মুক্ত করার কথাও জানান তিনি।