উফফ্‌, নাকটা গেল রে!!

:: রৌনক রায় ::
প্রকাশ: ৮ মাস আগে

উফফ্‌, নাকটা গেল রে!!
রৌনক রায় (বয়স ৯)

ছোট্ট বালু বাঁদর দিনরাত গাছে ঝোলে আর বদমায়েশি করে।এটা ছুঁড়ছে, ওটা ফেলছে, পাখিদের তাড়া করে বেড়াচ্ছে। এই ওর কাজ। জিনিস ছোঁড়া আর নষ্ট করা ওর যেন একটা স্বভাব হয়ে দাঁড়িয়েছে।

ভালো ভালো পাকা পাকা ফল নিজেও খাবেনা কাউকে খেতেও দেবেনা, সব কেবল ছুঁড়ে ছুঁড়ে নষ্ট করবে। একদিন টুইটু নামের একটা ছোট্ট মিষ্টি পাখি একটা পাকা পেঁপে দেখে খেতে নেমেছে ঠিক সেই সময় বালু সেটাকে ছিঁড়ে নিয়ে থপ্‌ করে ছুঁড়ে মারল জঙ্গলের ভেতর।

“যদি খাবেইনা তাহলে ফলটাকে অমনি নষ্ট করলে কেন?” জিজ্ঞাসা করল টুইটূ।

“যাও যাও,নিজের কাজ কর গিয়ে বেশি পাকামি করতে হবেনা তোমায়, বেশ করেছি ছুঁড়েছি, আমার যা খুশী করব, তোমার তাতে কি?” -জবাব দিল বালু।

বলতে বলতেই বালুর চোখে পড়ল একটা রবারের লাল রঙের বল, যথারীতি সেটা তুলে ছুঁড়ে মারল বালু। বলটা লাগল গিয়ে সামনের গাছে, আর সঙ্গে সঙ্গে সটান ফেরত এসে সোজা বালুর নাকে।

“উউউউউউহ্‌, আহহ্‌, মাগো, গেলাম… নাকটা গেল রে !!!” চিৎকার করে উঠল বালু।

টুইটূ পিছন ফিরে মুচকি হেসে জিজ্ঞেস করল, “আর কোনদিন ছুঁড়বে জিনিস অমনি করে?”

“না ,আর কখখনো নয়, খুব শিক্ষা হল যা হোক” -জবাব দিল বালু।